কুকুরের ডাকে মদ্যপানে অসুবিধা, বেনাচিতিতে মদ্যপদের হাতে আক্রান্ত কুকুরের মালিকের পরিবার

আমার কথা, দুর্গাপুর, ২৬মার্চঃ

কুকুরের ডাকে মদ্যপানে অসুবিধা হচ্ছিল জনা কয়েক মদ্যপের আর তার জন্য কুকুরের মালিককে কুকুরের ডাক বন্ধ করার হুমকি মদ্যপদের, আর সেই হুমকিতে কর্ণপাত না করায় ওই পরিবারের ওপর চড়াও হয়ে মারধর করার অভিযোগ উঠল। ঘটনাটি দুর্গাপুরের বেনাচিতির রামকৃষ্ণপল্লীর।

ওই বাড়ীর বাসিন্দা সুমিত বোস জানান যে, গতকাল রাত দশটা নাগাদ তিনি ও তাঁর দাদা দোকান বন্ধ করে বাড়ি ফেরেন। বাড়িতে ঢোকার মুখে বাড়ির সামনেই দেখেন কয়েকজন মুখ চেনা যুবক বসে মদ্যপ অবস্থায় বসে রয়েছে। সেই সময় সুমিতবাবুর বাড়ির কুকুরটি চিৎকার করছিল। ওই যুবকেরা কুকুরের চিৎকার বন্ধ করার কথা বলে সুমিতবাবুকে। সাথে এও শাসানি দেয় যে, যদি কুকুরের চিৎকার বন্ধ না করা হয় তাহলে সুমিতবাবুদের পরিবারের গলার আওয়াজও বন্ধ করে দেওয়া হবে। তা নিয়ে সুমিতবাবু প্রতিবাদ করলে তখন তাদের ওপর ওই যুবকরা চড়াও হয়। গেটে লাথি মারলে সেই গেট থেকে সুমিতবাবুর নাকে আঘাত লাগে। সুমিতবাবুর মাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয়ারও অভিযোগ উঠছে। এরপরেই সুমিতবাবু চিৎকার করে উঠলে প্রতিবেশীরা ছুতে আসেন। বেগতিক বুঝে তখন ওই মদ্যপ যুবকরা এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যায়।

সুমিতবাবুর অভিযোগ, পাড়াতে মদ গাঁজা খাচ্ছে। প্রতিবাদ করলেই এরকম ঘটনা ঘটছে। এরকম ঘটনা আরো ঘটেছে। কেউ ভয়ে মুখ খোলে, কেউ খুলতে পারছেন না। পাশাপাশি তিনি আরো অভিযোগ করেন যে, এলাকায় বাইরের অনেক অচেনা যুবকদের আনাগোনা বেড়ে গেছে। তাঁরা রীতিমতো আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছেন। থানায় লিখিত অভিযোগ জানানো হয়েছে।




Spread The Word